Menu

ভূমি সেবা হটলাইন চালু

নিউজ ডেস্কঃ

ভূমি সেবা প্রদানে হয়রানি ও দুর্নীতি বন্ধে হটলাইন ১৬১২২ চালু করা হয়েছে। ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরীর ৯০ দিনের কর্মসূচির অংশ হিসেবে এটি চালু করা হয়েছে।

হটলাইন চালু ছাড়াও ৯০ দিনের কর্মসূচির মধ্যে রয়েছে- সারাদেশে ই-নামজারি কার্যক্রম চালু, রিভিশনাল সার্ভে খতিয়ান অনলাইনে স্থাপন, ভূমি সেবা সপ্তাহ চালু, মন্ত্রণালয় ও মন্ত্রণালয়ের অধীন সংস্থা/দপ্তরের তৃতীয় ও চতুর্থ শ্রেণির কর্মচারীদের সম্পদের হিসাব নেওয়া। এ কর্মসূচির অংশ হিসেবে ভূমি কার্যক্রম সম্পর্কে সচেতনতা বাড়াতে একাধিক কর্মশালা, বিভিন্ন তথ্য সংবলিত বুকলেট বা ব্রুসিয়ার, প্রামাণ্যচিত্র ও নাটিকা তৈরির কাজও করা হচ্ছে।

এ ব্যাপারে ভূমিমন্ত্রী সাইফুজ্জামান চৌধুরী জাবেদ জানান, ভূমি সেবা দেওয়ার ক্ষেত্রে কোনো অনিয়ম-দুর্নীতি বরদাশত করা হবে না। ভূমি সেবা সহজ করতে, সেবা গ্রহীতার জটিলতা আইনগতভাবে দ্রুত মেটাতে এবং স্বচ্ছ ও জবাবদিহিমূলক সেবা দিতে ভূমি সেবা হটলাইন ১৬১২২ চালু করা হয়েছে। হটলাইনের মাধ্যমে যাদের বিরুদ্ধে অনিয়ম-দুর্নীতির খবর পাওয়া যাবে, তাদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

হটলাইন ১৬১২২ চালু হওয়ায় ভূমি সেবার ক্ষেত্রে অনিয়ম, ঘুষ, দুর্নীতি, হয়রানি ও ভোগান্তির কথা ভুক্তভোগী তাৎক্ষণিক জানাতে পারবেন। সারাদেশের যে কোনো জায়গা থেকে যে কেউ মোবাইল ও ল্যান্ড ফোনে এ নাম্বারে কল করতে পারবেন।
হটলাইনে কল করলে ভূমি মন্ত্রণালয়ের অধীন সংস্থা/দপ্তরের সিটিজেন চার্টার অনুযায়ী সেবা দেওয়া হবে। এ ছাড়া ভূমি অধিগ্রহণ, হুকুম দখল, নামজারি, ভূমি উন্নয়ন কর, কৃষি/অকৃষি খাস জমি বন্দোবস্ত, অর্পিত সম্পত্তি, পরিত্যক্ত সম্পত্তি, রেকর্ড রুম, জলমহাল, বালুমহাল, চা বাগান, হাট-বাজার ব্যবস্থাপনা ও ভূমি জরিপ বিষয়ে সেবা দেওয়া হবে।

ভূমি মন্ত্রণালয়ের যুগ্ম সচিব (মাঠ প্রশাসন) প্রদীপ কুমার দাস বলেন, হটলাইন চালুর মূল উদ্দেশ্য হলো জনগণকে ভূমি সংক্রান্ত সব সেবা প্রদান ও মানুষের দুর্ভোগ কমানো। এরই মধ্যে অভিযোগ আসা শুরু হয়েছে; সেগুলো সমাধানের চেষ্টা করা হচ্ছে।
উল্লেখ্য, গত ১০ অক্টোবর ভূমি সেবা হটলাইনের আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করা হয়। সচিবালয়ের চার নম্বর ভবনের ছয় তলার ৬৩৬ নম্বর কক্ষে এ কল সেন্টার চালু করা হয়েছে। গত ২২ অক্টোবর সাড়ে ৩টা পর্যন্ত ৬২২টি কল করে অভিযোগ জানানো হয়। ভূমি মন্ত্রণালয়ের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে বাংলাদেশ টেলিকমিউনিকেশন রেগুলেটরি কমিশন (বিটিআরসি) সম্প্রতি এই হটলাইন বরাদ্দ করেছে। মন্ত্রণালয়ের কল সেন্টারের পাঁচটি কাউন্টারে বিটিআরসির পাঁচজন দক্ষ লোককে নিযুক্ত করা হয়েছে। অভিযোগ লিপিবদ্ধ করা ও সমাধানের লক্ষ্যে সংশ্লিষ্টদের কাছে পাঠানোর ক্ষেত্রে তাদের সহায়তা করছেন মন্ত্রণালয়ের একাধিক কর্মকর্তা। তারা ভূমি মন্ত্রণালয়ের হটলাইন (১৬১২২) নির্দেশিকা অনুযায়ী কাজ করছেন।

কল সেন্টারে আসা অভিযোগগুলো নিষ্পত্তির সুপারিশ করে জেলা প্রশাসক, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, এসি ল্যান্ডসহ সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তাদের কাছে পাঠানো হচ্ছে।

Flag Counter

December 2019
M T W T F S S
« Nov    
 1
2345678
9101112131415
16171819202122
23242526272829
3031